1. dssangbad1@gmail.com : dss :
  2. admin@news.eswadhinsangbad.com : admin :
ম্যাজিস্ট্রেটের স্বাক্ষর জালিয়াতি: স্ট্যাম্প বিক্রেতা আশরাফুলকে রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে - দৈনিক স্বাধীন সংবাদ
বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৭:২৪ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনামঃ
চট্টগ্রামে জাসাস’র বিভাগীয় কমিটির উদ্যোগে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন  র‌্যাব-১০ এর একাধিক অভিযানে রাজধানীর যাত্রাবাড়ী ও কেরাণীগঞ্জ এলাকা হতে টপবাজ, গ্যাং স্টার প্যারাডাইস, বয়েস হাই ভোল্টেজ, দে-দৌড়, হ্যাচকা টান ও বুস্টার গ্রুপসহ বিভিন্ন কিশোর গ্যাং গ্রুপের ৫০ জন গ্রেফতার ভাষা শহীদদের প্রতি আমতলী সাংবাদিক ফোরামের শ্রদ্ধা নিবেদন লক্ষীপুরে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে পুলিশ সুপারের শ্রদ্ধা নিবেদন নোয়াখালী চৌমুহনীতে টেকনাফের এক ব্যক্তি অপহরণ মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে হ্যাপি জেনারেল হাসপাতালে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প ব্রাহ্মবাড়িয়া ৩ দিনব্যাপী দ্বিতীয় অদ্বৈত গ্রন্থমেলা-২০২৪ শুরু নবযুগ বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ আয়োজনে সাংসদ সদস্যকে সংবর্ধনা ও ক্রীড়া প্রতিযোগিতা পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠিত নরসিংদীতে মক্তব থেকে ফেরার পথে শিশুকে তুলে নিয়ে ধর্ষণের অভিযোগে যুবক গ্রেপ্তার

ম্যাজিস্ট্রেটের স্বাক্ষর জালিয়াতি: স্ট্যাম্প বিক্রেতা আশরাফুলকে রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে

প্রথম নিউজ ডেস্ক
  • প্রকাশিত : শুক্রবার, ৭ জানুয়ারী, ২০২২
  • ১৫০ জন দেখেছে

ঢাকা মহানগর হাকিম দেবদাস চন্দ্র অধিকারী স্বাক্ষরিত হলফনামা জালিয়াতির অভিযোগে দায়ের করা মামলায় ঢাকার আদালতপাড়ার স্ট্যাম্প বিক্রেতা আশরাফুল ইসলামকে পাঁচ দিনের রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে।

মামলার সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে তদন্তকারী কর্মকর্তা শুক্রবার (৭ জানুয়ারি) তাকে আদালতে হাজির করে ১০ দিনের রিমান্ডের আবেদন করেন। শুনানি শেষে ঢাকা মহানগর হাকিম মাহবুব আহমেদ আসামিদের পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

মামলার এজাহারে বলা হয়, ভিকটিম মো. রহমত আলী একজন গার্মেন্টস শ্রমিক। বিদেশ যাওয়ার জন্য পাসপোর্ট পেয়েছি। তবে পাসপোর্টে ভিকটিম ও তার বাবার নাম ভুল রয়েছে। পরে পরিস্থিতি শুধরে বুধবার (৫ জানুয়ারি) আসামি আদালত এলাকায় যান। আশরাফুল ইসলামের সঙ্গে কথা বলেন। এ সময় তাকে কাজের বিনিময়ে নগদ এক হাজার টাকা দেওয়া হয়। অভিযুক্ত আশরাফুল ও তার সহযোগী মোহাম্মদ আলী পরে ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট দেবদাস চন্দ্র অধিকারী স্বাক্ষরিত একটি নোটারি পাবলিক (হলফনামা) করেন।

ওই দিন দুপুর আড়াইটার দিকে ভুক্তভোগী রহমত আলী হলফনামা নেন। পরে বিষয়টি সন্দেহজনক হলে বৃহস্পতিবার (৬ জানুয়ারি) ঢাকা মহানগর আদালতের রেজিস্ট্রারের কার্যালয়ে হলফনামা দেন ভিকটিম। তখন কর্মীরা তাকে জানান, হলফনামায় ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট দেবদাস চন্দ্র অধিকারীর স্বাক্ষর নেই।

রেজিস্ট্রারের পর্যালোচনা তখন দেখায় যে নোটারিটি পাবলিক করা হয়নি। এ বিষয়ে কোতয়ালী থানায় খবর দিলে পুলিশ এসে অভিযুক্ত আশরাফুলকে আটক করে। তবে অপর আসামি মোহাম্মদ আলী পালিয়ে যায়।

এসময় একটি সিপিইউ, একটি মনিটর, একটি প্রিন্টার, একটি কীবোর্ড ও একটি মাউস জব্দ করা হয়েছে।

এ ঘটনায় ভুক্তভোগী রহমত আলী রাজধানীর কোতোয়ালি থানায় একটি মামলা করেন।

সংবাদ টি শেয়ার করে সহযোগীতা করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো সংবাদ
Design & Developed by REHOST BD